বুধবার প্রথম দিন দেওয়া হচ্ছে ৩১ মে’র অগ্রিম টিকেট। অ্যাপসসহ প্রায় ১২ হাজার টিকিট দেওয়া হবে। ছবি: সংগৃহীত

চট্টগ্রামে ট্রেনের টিকেট বিক্রির শুরুতেই সার্ভার সমস্যা

প্রিয় ডেস্ক
ডেস্ক রিপোর্ট
প্রকাশিত: ২২ মে ২০১৯, ১৭:০৯
আপডেট: ২২ মে ২০১৯, ১৭:০৯

(প্রিয়.কম) পবিত্র ঈদুল ফিতর উপলক্ষে চট্টগ্রামে রেলের অগ্রিম টিকেট বিক্রির প্রথম দিনেই সার্ভার ক্রুটির কারণে ভোগান্তিতে পড়েছেন টিকেট-প্রত্যাশী সাধারণ মানুষ।

২২ মে, বুধবার সকাল ৯টা থেকে শুরু হয় প্রথম দিনের ট্রেনের টিকেট বিক্রি। প্রত্যাশিত টিকেটের আশায় কেউ রাত থেকে আবার কেউ সেহেরির পর থেকে টিকেটের জন্য লাইনে দাঁড়ালেও সকালে টিকেট বিক্রি শুরু হওয়ার পরপরই সার্ভারে সমস্যা দেখা দেয়। এতে চরম ভোগান্তিতে পড়েন টিকেটের লাইনে দাঁড়িয়ে থাকা লোকজন।

রেল স্টেশনে টিকেট কাটতে আসা অনেক যাত্রী মঙ্গলবার মধ্যরাত থেকে টিকেটের জন্য অপেক্ষায় ছিলেন।

এত ভিড়ের মধ্যে সার্ভারের সমস্যার কারণে প্রথম ১৫ মিনিটে যেখানে শতাধিক টিকেট বিক্রি হওয়ার কথা, সেখানে বিক্রি হয়েছে মাত্র ৪-৬টি টিকেট। প্রথম দিনে এভাবে সার্ভার বিকল বা সমস্যা দেখা দেওয়ার কারণে কাউন্টারের সামনে অপেক্ষায় থাকা টিকেট-প্রত্যাশীরা ক্ষোভ প্রকাশ করেন।

রেলওয়ে সূত্র জানায়, বুধবার প্রথম দিন দেওয়া হচ্ছে ৩১ মে’র অগ্রিম টিকেট। অ্যাপসসহ প্রায় ১২ হাজার টিকেট দেওয়া হবে।

আগামীকাল ২৩ মে, বৃহস্পতিবার দেওয়া হবে ১ জুনের টিকেট, ২৪ মে, শুক্রবার দেওয়া হবে ২ জুনের টিকেট, ২৫ মে, শনিবার দেওয়া হবে ৩ জুনের টিকেট এবং ২৬ মে, রবিবার দেওয়া হবে ৪ জুনের টিকেট।

এ ছাড়া ফেরত যাত্রীদের জন্য ২৯ মে দেওয়া হবে ৭ জুনের টিকেট, একইভাবে ৩০ ও ৩১ মে এবং ১ ও ২ জুন দেওয়া হবে যথাক্রমে ৮, ৯, ১০ ও ১১ জুনের টিকেট।

এ বিষয়ে জানতে রেলওয়ে পূর্বাঞ্চলের মহাব্যবস্থাপক সৈয়দ ফারুক বলেন, ‘কাউন্টারে টিকেট বিক্রির পাশাপাশি আমরা রেলওয়ের অ্যাপসেও টিকেট বিক্রি করছি; যার ৫০ শতাংশ রেলওয়ের অ্যাপসে এবং বাকি ৫০ শতাংশ স্টেশন কাউন্টারে।’

সার্ভারের সমস্যার কথা উল্লেখ করে তিনি বলেন, ‘এসএসসি পরীক্ষার রেজাল্টের সময় অনলাইনে সমস্যা করে। কারণ সবাই একসঙ্গে রেজাল্ট জানার জন্য ঢোকে। ঠিক অ্যাপসেও সবাই টিকেট কাটার জন্য ঢুকছে, তাই আজ প্রথম দিন শুরুতেই সার্ভারে একটু সমস্যা দেখা দিয়েছিল। তবুও বিষয়টি নিয়ে রেলওয়ে কাজ করছে।’

চট্টগ্রাম রেল স্টেশন থেকে প্রতিদিন ১২ হাজার টিকেট দেওয়া হবে। রেলওয়ের অ্যাপসে মাধ্যমে ৫০ শতাংশ অর্থাৎ ৬ হাজার টিকেট ও বাকি ছয় হাজার টিকেট রেলস্টেশনে দেওয়া হবে।

প্রিয় সংবাদ/কামরুল/আজাদ চৌধুরী

আরো পড়ুন