সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের। ফাইল ছবি

যে দলই নির্বাচিত হোক, ভারতের সঙ্গে বাংলাদেশের সুসম্পর্ক থাকবে

মোক্তাদির হোসেন প্রান্তিক
নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ২২ মে ২০১৯, ১৬:০০
আপডেট: ২২ মে ২০১৯, ১৬:০০

(প্রিয়.কম) ভারতের জনগণ যে দল বা জোটকে নির্বাচিত করবে তাদের সঙ্গেই বাংলাদেশের সুসম্পর্ক থাকবে—এমনটি জানিয়েছেন সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের

২২ মে, বুধবার দুপুরে সচিবালয়ে ভারতীয় রাষ্ট্রদূত রিভা গাঙ্গুলির সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাৎ শেষে সাংবাদিকদের এ কথা বলেন তিনি।

মন্ত্রী জানান, ভারতের সঙ্গে যোগাযোগের নতুন নতুন দরজা উন্মোচিত হবে। তিস্তা চুক্তি নিয়ে বাংলাদেশ সবসময় আশাবাদী। ছিটমহল, সীমান্ত চুক্তি যেভাবে বাস্তবায়ন হয়েছে, তিস্তাসহ অভিন্ন নদীর বিষয়েও একইভাবে ভারতের নতুন সরকার সমাধান করবে বলে আশা প্রকাশ করেন তিনি।

মন্ত্রী জানান, ঈদ যাত্রা নির্বিঘ্ন করতে ভারত থেকে নতুন ৬০০ বাস এবং ৫০০ ট্রাক আনা হচ্ছে। ইতিমধ্যে ভারত থেকে এরই মধ্যে ১৭৯টি বাস দেশে এসেছে আর ৪৮০টি ট্রাক চলে এসেছে।

ধানের কম মূল্যে ক্ষেতে আগুন দেওয়ার ঘটনাগুলো বিশেষ বিশেষ জায়গায় কেন ঘটছে—তা তদন্ত করতে সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয়কে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা নির্দেশ দিয়েছেন বলে জানান ওবায়দুল কাদের।

কৃষকের ধানক্ষেতে আগুন দেওয়ার বিষয়ে এক প্রশ্নে ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘এ নিয়ে সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয়কে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা নির্দেশ দিয়েছেন বিষয়টি খতিয়ে দেখতে।’

‘এখানে ঘটনাগুলো স্যাবোটেজ কি না, কোনোভাবে এটা সরকারের সুনাম ক্ষুণ্ন করার জন্য কেউ বিষয়টা…কৃষক সংকট উদ্ভব হয়! কিন্তু এভাবে আগুন জ্বালিয়ে ধানক্ষেতে, এসব ঘটনাগুলো বিশেষ বিশেষ জায়গায় ঘটছে কেন, এটা তদন্ত করে জানাতে বলেছেন। দলীয়ভাবেও আমরা খোঁজখবর নেব।’

তিনি বলেন, ‘সরকার এখানে আন্তরিক ও সরকার কখনো চাইবে না, আমাদের কৃষির মেরুদণ্ড যে কৃষকেরা তারা ক্ষতিগ্রস্ত হোক। কৃষকদের স্বার্থবিরোধী, কৃষকবান্ধব সরকার কখনো করবে না। শেখ হাসিনা সরকার এ ব্যাপারে আন্তরিক। এসব বিষয়ে খোঁজখবর নেওয়া হচ্ছে। এখানে যে সমস্যার উদ্ভব হয়েছে, এর বাস্তবসম্মত সমাধানে উদ্যোগী সরকার।

ধানের চলমান সংকট প্রসঙ্গে সেতুমন্ত্রী বলেন, ‘সরকার কৃষকবান্ধব। কৃষক যাতে ধানের ন্যায্য মূল্য পায়, সে জন্য সরকার বাস্তবসম্মত সমাধানের চেষ্টা করছে। আগুন জ্বালিয়ে ধান পুড়িয়ে সমস্যার সমাধান হবে না। ধানের দাম নিয়ে খোঁজখবর নেওয়া হচ্ছে।’

প্রিয় সংবাদ/আজাদ চৌধুরী

আরো পড়ুন