‘হীরক রাজার দেশে’ সিনেমায় অমর পালের গাওয়া জনপ্রিয় গান ‘কতই রঙ্গ দেখি দুনিয়ায়’। ছবি: সংগৃহীত

‘হীরক রাজার দেশে’র বিখ্যাত গায়কের জীবনাবসান

শামীমা সীমা
সহ সম্পাদক
প্রকাশিত: ২০ এপ্রিল ২০১৯, ২৩:৫০
আপডেট: ২০ এপ্রিল ২০১৯, ২৩:৫০

(প্রিয়.কম) প্রবাদপ্রতিম সংগীতশিল্পী অমর পাল আর নেই। তার বয়স হয়েছিল ৯৬ বছর। হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে শনিবার বিকেলে কলকাতার এক হাসপাতালে প্রয়াত হলেন তিনি। তার স্ত্রী পুতুল রানী পাল প্রয়াত হয়েছেন অনেক আগেই। সত্যজিৎ রায়ের বিখ্যাত সিনেমা ‘হীরক রাজার দেশে’ সিনেমার জনপ্রিয় গান ‘কতই রঙ্গ দেখি দুনিয়ায়’ গানটির মূল গায়ক ছিলেন অমর পাল।

ভারতীয় গণমাধ্যম সূত্রের খবর, মারা যাওয়ার দিন শনিবার সকালেও ছাত্রছাত্রীদের গানের ক্লাস করিয়েছেন অমর। তারপরই অসুস্থ হয়ে পড়েন তিনি। তার প্রয়াণে শোকের ছায়া নেমে এসেছে শিল্পী মহলে। ‘হীরক রাজার দেশে’ সিনেমায় অমরের গাওয়া জনপ্রিয় গান ‘কতই রঙ্গ দেখি দুনিয়ায়’ ছাড়াও তার প্রভাতী সংগীত এবং ভাটিয়ালি গানও শ্রোতারা মনে রাখবেন।

অমর পাল। ছবি: সংগৃহীত

সুরকার তথা গায়ক অমর পালের জন্ম ১৯২২-এর ১৯ মে, বাংলাদেশের ব্রাহ্মণবাড়িয়ায়। মা দুর্গাসুন্দরী দেবীর কাছে লোকসংগীতে হাতেখড়ি হয় তার। আট বছর উচ্চাঙ্গ সংগীতের তালিম নেন ওস্তাদ আলাউদ্দিন খানের ছোট ভাই আয়েত আলি খানের কাছে। ১৯৫১ সালে আকাশবাণী কলকাতা কেন্দ্রের লোকসংগীত শিল্পী হিসেবে গান পরিবেশন করেন। নিজে বহু লোকসংগীত রচনা করলেও বাউল, টুসু, মনসা থেকে ভাটিয়ালির কথা ও সুরকে ভোলেননি অমর পাল।

শুধু সত্যজিৎ রায়ের প্লেব্যাক নয়, পরবর্তী কালে প্রয়াত ঋতুপর্ণ ঘোষ থেকে তপন সিংহ, দেবকীকুমার বসুর সঙ্গেও কাজ করেছেন অমর পাল। আধুনিক বাংলা গানের স্বর্ণযুগেও তিনি লোকসংগীত গেয়ে মধ্যগগনে থেকেছেন। তার মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করেছেন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তার পরিবারকে সমবেদনাও জানিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী।

দীর্ঘ সঙ্গীতময় জীবনে একাধিক পুরস্কারে সম্মানিত হয়েছেন অমর পাল। শিল্পীকে সংগীত নাটক অ্যাকাডেমি পুরস্কারে সম্মানিত করেছে ভারত সরকার। এই গুণী শিল্পীকে বর্ধমান বিশ্ববিদ্যালয় সাম্মানিক ডিলিট উপাধি দেয়। পেয়েছেন পশ্চিমবঙ্গ সরকারের লালন পুরস্কারও। গান করার পাশাপাশি বহু বাংলা সিনেমায় সংগীত পরিচালক হিসেবে কাজ করেছেন তিনি।

সূত্র: apnnews

প্রিয় বিনোদন/আজাদ চৌধুরী

আরো পড়ুন