টানা তিন জয়ে গ্রুপসেরা বাংলাদেশ

মানবজমিন প্রকাশিত: ১৯ নভেম্বর ২০১৯, ০০:০০

ইমার্জিং এশিয়া কাপে জয়ের ধারা অব্যাহত রাখলো বাংলাদেশ। টানা তিন জয়ে নিজেদের সামর্থ্য দেখালো স্বাগতিকরা। গতকাল নিজেদের তৃতীয় ম্যাচে নেপালকে ৮ উইকেটে হারায় বাংলাদেশ ইমার্জিং দল। ‘বি’ গ্রুপে তিন ম্যাচের প্রতিটিতে জিতে পূর্ণ ৬ পয়েন্ট নিয়ে তালিকার শীর্ষে রয়েছে বাংলাদেশ। গতকাল নাজমুল হোসেন শান্ত ও নাইম শেখ ব্যাট হাতে আলো ছড়ান। তাদের ব্যাটিং নৈপুণ্যে ১৩৯ রানের লক্ষ্য ২৬ ওভার হাতে রেখে টপকে যায় বাংলাদেশ। প্রথম ম্যাচে হংকংকে ৯ উইকেটে ও দ্বিতীয় ম্যাচে ভারতকে ৬ উইকেটে হারিয়েছিল বাংলাদেশ। দুই ম্যাচে ভালো করা সৌম্য সরকার গতকাল ব্যাট হাতে বেশিদূর এগুতে পারেননি। ভারতের বিপক্ষে ৯৪ রান করা শান্ত গতকালও অর্ধশতক তুলে নেন। টানা তৃতীয় ম্যাচে বল হাতে নৈপুণ্য দেখালেন সুমন খান। বল হাতে ভালো করেছেন মিনহাজুল আবেদিন আফ্রিদিও।প্রথম দুই ম্যাচে ভারত ও হংকংয়ের বিপক্ষে ৮ উইকেট (৪+৪) নেন ১৯ বছর বয়সী পেসার সুমন খান। শেষ ম্যাচে নেপালের বিপক্ষে নেন ৩ উইকেট। সাভারে বিকেএসপির মাঠে ১৩৯ রানের লক্ষ্য তাড়া করতে নেমে দলীয় ৩৪ রানে ওপেনার সৌম্যকে হারায় বাংলাদেশ। ১৭ বলে ১১ রান করেন এই বাঁহাতি ব্যাটসম্যান। তবে নাইম শেখ ও অধিনায়ক নাজমুল হোসেন শান্ত জয়ের ভিত গড়ে দেন। প্রথম ম্যাচে ৫২ রান করা নাইম এই ম্যাচে ৫ রানের জন্য অর্ধশতক মিস করেন। ৫৬ বলে ৪৫ রান করে দলীয় ১১৩ রানে আউট হন নাইম। অধিনায়ক শান্ত ৫৬ বলে ৬ চার ও ২ ছক্কায় ৫৯ রানে অপরাজিত থেকে জয় নিয়ে মাঠ ছাড়েন। শান্তর সঙ্গে ইয়াসির আলী ১৫ বলে ২ চার ও ১ ছক্কায় ১৮ রান নিয়ে অপরাজিত থাকেন। এর আগে টস জিতে নেপালকে ব্যাটিংয়ে পাঠায় বাংলাদেশ। ব্যাটিংয়ে নেমে ৪৪.৩ ওভারে ১৩৮ রানে অলআউট হয় নেপাল। ৩৩ রানের ওপেনিং জুটি ভাঙার পর ব্যাটিং ধস নামে নেপাল ইনিংসে। ৬৮ রানে হারায় ৭ উইকেট। শেষদিকে ৯ নম্বরে নামা সোম্পাল কামির দলীয় সর্বোচ্চ ৩৮ রান করলে দলীয় ১০০ পার করে নেপাল। বাংলাদেশের পক্ষে ৮.৩ ওভারে ২৯ রান দিয়ে ৩ উইকেট নেন পেসার সুমন খান। তিন ম্যাচে তার উইকেটসংখ্যা দাঁড়ালো ১১। মিনহাজুল আবেদিন আফ্রিদি নেন ২৯ রানে ৩ উইকেট।সংক্ষিপ্ত স্কোরটস: বাংলাদেশ, ফিল্ডিংনেপাল ইমার্জিং দল: ৪৪.৩ ওভারে ১৩৮ (সোম্পাল ৩৮, মাল্লা ২২; সুমন খান ৩/২৯, আফ্রিদী ৩/২৯, মেহেদী ১/২৫)বাংলাদেশ ইমার্জিং দল: ২৪ ওভারে ১৪০/২ (নাইম ৪৫, শান্ত ৫৯*, ইয়াসির ১৮*, সৌম্য ১১)ফল: বাংলাদেশ ৮ উইকেটে জয়ী।

সম্পূর্ণ আর্টিকেলটি পড়ুন

এই সম্পর্কিত

আরও